1. mirzaromeohridoy@gmail.com : Kazi Sakib : Kazi Sakib
  2. hridoysmedia@gmail.com : news :
মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১, ০৪:৪০ পূর্বাহ্ন

পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সফিকুল আহম্মদকে পরিবারের শুভেচ্ছা

  • প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ৮ জানুয়ারী, ২০২১
  • ১৮১ বার পড়া হয়েছে
পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সফিকুল আহম্মদকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তার পরিবার।

ডেস্ক রিপোর্ট : পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সফিকুল আহম্মদকে শুভেচ্ছা  জানিয়েছেন তার পরিবার পরিজন। শুক্রবার (৮ জানুয়ারি) তিনি তার নিজ বাড়ি সাতক্ষীরায় আসেন। এ উপলক্ষে শহরের কুখরালী এলাকায় তার বোনের বাড়ির পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তার বড় বোন শরিফা খাতুন, ভাগ্নি  মোসলেমা সুলতানা, ভাগ্নে সময় বার্তার সম্পাদক জি.এম মোশাররফ হোসেন।  এসময় তার পরিবারের আনন্দঘন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সময় বার্তার নির্বাহী সম্পাদক মো. আশারাফুজ্জামান মুকুল, তার ছোট ভাই কৃষি কর্মকর্তা মোতাহার হোসেন, আহাদ আলীসহ তার পরিবারের সকল সদস্যবৃন্দ।

উল্লেখ্য, মো. শফিকুল আহম্মদ দেবহাটা উপজেলার পারুলিয়া ইউনিয়নের খেজুরবাড়ীয়া গ্রামের সমভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেন। তিনি সাজ্জাদ আলী মাস্টার ও বেগম শাহিদা খাতুনের পুত্র। তিনি পারুলিয়া এস এস মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এসএসসি ও সাতক্ষীরা সরকারি কলেজ থেকে এইচ এস সি পাশ করেন এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ভূগোলে অনার্স মাস্টার্স শেষ করেন। ১৯৯১ সালে ২৬ জানুয়ারি বিসিএস (প্রশাসন) ক্যাডারে যোগদান করেন। তিনি সহকারী সচিব হিসাবে পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগে যোগদানের মধ্যদিয়ে চাকরি জীবন শুরু করেন। এরপর মাঠ পর্যায়ে তিনি প্রশাসনের বিভিন্ন স্তরে গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালন করেন। নেজারত ডেপুটি কালেক্টর উপজেলা নির্বাহী অফিসার, সচিব জেলা পরিষদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক, সহকারী ওয়াকফ প্রশাসন হিসাবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ে মাননীয় প্রতিমন্ত্রীর সহকারী একান্ত সচিব হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন। মিলিটারি এস্টেট অফিসার হিসাবে বগুড়া সেনানিবাসে, উপ-পরিচালক হিসেবে সামরিক ভূমি ও ক্যান্টনমেন্ট অধিদপ্তর ঢাকা সেনা-বিবাসে দায়িত্ব পালন করেন। পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ে যোগদানের পূর্বে তিনি প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে কর্মরত ছিলেন। তিনি বিভিন্ন প্রশিক্ষণ ও রাষ্ট্রীয় কাজের জন্য থাইল্যান্ড, জাপান, চীন, সিঙ্গাপুর, মালেশিয়া, ভিয়েতনাম, যুক্তরাষ্ট্র, মালি, কঙ্গো, মধ্য আফ্রিকা, কাতার, বেলারুশ, তুরুস্ক সফর করেন। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি বিবাহিত এবং এক কন্যা ও এক পুত্র সন্তান রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ