1. mirzaromeohridoy@gmail.com : Kazi Sakib : Kazi Sakib
  2. hridoysmedia@gmail.com : news :
বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:৪৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সুইডেনের আদলে ২০০ কি.মি. বৈদ্যুতিক সড়ক বানাচ্ছে ভারত শিগগির বিয়ে করতে যাচ্ছেন সিদ্ধার্থ-কিয়ারা! ই-কমার্স বন্ধ না করে প্রতারণা ঠেকাতে আইন করার তাগিদ ৪ মন্ত্রীর নরসিংদী পলাশে এক নারীর স্বর্ণ চুরি করতে গিয়ে ৭ নারী গ্রেফতার নলতায় জলাবদ্ধতা নিরসনে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করলেন তুফান গড়ইখালীর নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম কেরু’র নির্বাচন পরবর্তী শুভেচ্ছা বিনিময় কুলিয়ায় কয়েক হাজার নেতাকর্মী নিয়ে আছাদুল হকের মোটর শোভাযাত্রা দেবহাটার ওসি-সেকেন্ড অফিসারকে বদলী, ভারপ্রাপ্ত ওসি ফরিদ আহমেদ খলিশাখালি সহস্রাধিক বিঘা জমি দখলের ঘটনায় সরেজমিনে মামলার তদন্তে পিবিআই সাতক্ষীরায় তথ্য অধিকারের ওপর সচেতনতামূলক প্রচারণা বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

সাতক্ষীরার ১৩০০ পরিবার পাচ্ছে প্রধানমন্ত্রীর উপহার

  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৬ জানুয়ারী, ২০২১
  • ৯০ বার পড়া হয়েছে
নিজস্ব প্রতিনিধি : মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে সাতক্ষীরায় নতুন ঘর পাচ্ছে ১৩০০ গৃহহীন পরিবার। আগামী মার্চের মধ্যে এগুলোর নির্মাণ শেষ করতে চায় জেলা প্রশাসন। ইতোমধ্যে সাতক্ষীরার সাতটি উপজেলায় ৯৩৮টি গৃহনির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে। এরমধ্যে সাতক্ষীরা সদর উপজেলায় ১৩০টি, তালা উপজেলায় ৭৫টি, কলারোয়া উপজেলায় ৩০টি, আশাশুনি উপজেলায় ৩৪৭টি, দেবহাটা উপজেলায় ২৯টি, কালিগঞ্জ উপজেলায় ৩৭টি ও শ্যামনগর উপজেলায় ২৯০টি আশ্রয়হীন পরিবারের জন্য প্রস্তুত হচ্ছে।ইতোমধ্যেই নির্মাণাধীন এসব বাসগৃহের নির্মাণ কাজ দুই তৃতীয়াংশ শেষ হয়েছে বলে জানা গেছে। বাকিগুলোর নির্মাণ কাজ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। ‘আশ্রয়ণের অধিকার শেখ হাসিনার উপহার’ এই স্লোগানে গত ১ডিসেম্বর ২০২০ এসব গৃহ নির্মাণ কাজ উদ্বোধন করা হয়। আগামী মার্চের মধ্যে এসব ঘরহীন পরিবারকে আধপাকা টিন-শেড ঘর দেওয়া হবে।জানা গেছে, প্রায় ৫০০ বর্গফুটের প্রতিটি ঘরে থাকবে দুটি রুম, একটি করিডোর, একটি বাথরুম ও একটি রান্নাঘর। দুর্যোগ সহনীয় এসব ঘর হবে টেকসই এবং প্রতিটি ঘরেই থাকবে সোলার সিস্টেম আর বজ্রপাত নিরোধক ব্যবস্থা।মন্ত্রণালয়ের নির্দেশিকা অনুসরণ করে জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামালের তত্ত্বাবধানে সংশ্লিষ্টরা সুবিধাভোগীদের তালিকা প্রস্তুত করেন। কারও এক বা দুই শতাংশ জায়গা আছে কিন্তু ঘর নেই বা ঘর আছে কিন্তু তা খুবই ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় আছে, তাদের এই ঘর দেওয়া হচ্ছে। এছাড়া যে পরিবারে পুরুষ সদস্য নেই বা পুরুষ সদস্য আছে কিন্তু তার বয়স ৬৫ বছরের ওপরে এমন পরিবারকেও ঘর দেওয়া হচ্ছে। এর সঙ্গে নদীভাঙনে যারা ঘরবাড়ি হারিয়েছেন তারা তো রয়েছেই।সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল জানান, সাতক্ষীরার সাতটি উপজেলায় মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে প্রথম ধাপে মোট ১৩০০ গৃহহীন পরিবার নতুন ঘর পাবেন। ইতোমধ্যে সেই প্রকল্পের কাজ শুরু হয়েছে। তবে কিছু কিছু এলাকায় খাস জমির অভাবে সেখানে এ প্রকল্পের কাজ প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।তিনি আরও বলেন, সম্পূর্ণ স্বচ্ছতার ভিত্তিতে সরকারের নির্দেশনা মেনেই প্রধানমন্ত্রীর উপহার গৃহহীনদের জন্য নতুন ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জনপ্রতিনিধিসহ উপজেলা প্রশাসন সার্বক্ষণিক মনিটরিং করা হচ্ছে। কোনও অনিয়ম দুর্নীতি ছাড় দেওয়া হবে না বলে জানান তিনি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ