1. mirzaromeohridoy@gmail.com : Kazi Sakib : Kazi Sakib
  2. hridoysmedia@gmail.com : news :
বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:৪৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
সুইডেনের আদলে ২০০ কি.মি. বৈদ্যুতিক সড়ক বানাচ্ছে ভারত শিগগির বিয়ে করতে যাচ্ছেন সিদ্ধার্থ-কিয়ারা! ই-কমার্স বন্ধ না করে প্রতারণা ঠেকাতে আইন করার তাগিদ ৪ মন্ত্রীর নরসিংদী পলাশে এক নারীর স্বর্ণ চুরি করতে গিয়ে ৭ নারী গ্রেফতার নলতায় জলাবদ্ধতা নিরসনে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করলেন তুফান গড়ইখালীর নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম কেরু’র নির্বাচন পরবর্তী শুভেচ্ছা বিনিময় কুলিয়ায় কয়েক হাজার নেতাকর্মী নিয়ে আছাদুল হকের মোটর শোভাযাত্রা দেবহাটার ওসি-সেকেন্ড অফিসারকে বদলী, ভারপ্রাপ্ত ওসি ফরিদ আহমেদ খলিশাখালি সহস্রাধিক বিঘা জমি দখলের ঘটনায় সরেজমিনে মামলার তদন্তে পিবিআই সাতক্ষীরায় তথ্য অধিকারের ওপর সচেতনতামূলক প্রচারণা বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

শীতকালীন সবজির বাম্পার ফলন, দামেও খুশি চাষিরা

  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ২৭ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৮৮ বার পড়া হয়েছে

সাইফুল ইসলাম রুদ্র, নরসিংদী প্রতিনিধি: নরসিংদীতে শীতকালীন সবজির বাম্পার ফলন হয়েছে। চলতি মৌসুমে লাভের আশায় আগাম জাতের শীতকালীন সবজি চাষ করেছিলেন নরসিংদীর কৃষকরা। আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ও জমি চাষের উপযোগী হওয়ার কারণে চাষ করা সবজির বেশ ভালো ফলন পেয়েছেন চাষিরা। আগামীতে এ জেলায় সবজির চাষ আরও বৃদ্ধি পাবেন বলেও জানান স্থানীয়রা। নরসিংদী রাযপুরা উপজেলা মরজাল ইউনিযন এ কৃষক ফাতেমা বেগম সংবাদকর্মী সাইফুল ইসলাম রদ্র কে জানান শিম চাষ করে আমরা এখন লাভবান হযিেছ প্রতিবছরের মতো এবারও আমার খেতে বাম্পার ফলন হযেেছ। জানা যায়, সবজি চাষের জন্য নরসিংদী জেলার খ্যাতি রয়েছে। এ জেলার রায়পুরা, শিবপুর, মনোহরদী, পলাশ ও বেলাব উপজেলায় সবচেয়ে বেশি সবজির চাষ হয়ে থাকে। আর এখানকার বেশিরভাগ কৃষকরাই সবজি চাষের ওপর নির্ভরশীল।সবজি চাষের মাধ্যমে অনেকেই তাদের জীবিকা নির্বাহ করে থাকেন।


নরসিংদী জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, এ বছর জেলার ১১৭০ হেক্টর জমিতে সবজি চাষের লক্ষ‌্যমাত্রা ধরা হয়েছে। ইতিমধ্যে ৩৬০ হেক্টর জমিতে শীতের আগাম সবজি চাষ করা হয়েছে।কৃষক মোস্তফা বলেন, এ মৌসুমে আমার এক বিঘা জমিতে শিমের চাষ করেছি। ব‌্যবাসয়ীরা এসে জমি থেকে প্রতি কেজি শিম ৯০-১০০ টাকা দরে কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। এখন পর্যন্ত আমি প্রায় ১০ হাজার টাকার শিম বিক্রি করেছি। আরও অনেক টাকার বিক্রি করতে পারবো বলে আশা করছি। আরেক কৃষক মনির হোসেন জানান, তার জমিতে এবার ২২০০ ফুলকপির চারা লাগিয়েছেন। এতে খরচ হয়েছে ৩০-৩৫ হাজার টাকা। তবে প্রতিটা ফুলকপি ৩৫-৪০ টাকা দরে ১ লাখ টাকার ওপরে বিক্রি করতে পারবেন বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি। নরসিংদী জেলার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক সুভন চন্দ্র বলেন, আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় জেলার সর্বত্র শীতের আগাম সবজির ফলন ভালো হয়েছে। চলতি মৌসুমে ১১৭০ হেক্টর জমিতে সবজি চাষের লক্ষ‌্যমাত্রা ধরা হয়েছে। আশা করছি এবার কৃষকরা সবজি চাষে লাভবান হবেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরও সংবাদ